সি শেখার গাইডলাইন!

বাংলা ভাষায় সি প্রোগ্রামিং ভাষা দিয়ে প্রোগ্রামিং শেখার গাইডলাইন

শখের বশে কিংবা বাটে পড়ে – যেকারণেই হোক না কেন, প্রোগ্রামিং যারা শিখে, তাদের বেশিরভাগেরই “সি” প্রোগ্রামিং ভাষা শিখতে হয়। সি কেন শিখব, বা সি শিখে কী লাভ – এই আলোচনা করাটা এই লেখার উদ্দেশ্য নয়, বরং যারা ইতিমধ্যে সি শিখবে বলে মনস্থির করেছে এবং বাংলা ভাষায় সি শেখার রিসোর্স খুঁজছে, তাদের জন্যই এই লেখা। যেহেতু আমি সি প্রোগ্রামিং নিয়ে একাধিক বই লিখেছি, তাই সেগুলো কোনটা কাদের জন্য, সেটাও এই লেখায় তুলে ধরব।

সি শেখার শুরুতেই এখন যেটা করা উচিত, এক ঘণ্টার সি ভিডিওটা দেখে ফেলা উচিত। এখানে কিছু কিছু বুঝা যাবে, আবার কিছু কিছু জিনিস নতুনরা হয়ত একেবারেই বুঝবে না – তাতে ঘাবড়ে যাবার কিছু নেই। বরং সম্ভব হলে পুরো ভিডিওটা দুইবার দেখতে হবে। এই ভিডিও দেখলে সি নিয়ে একটা ধারণা তৈরি হবে।

তারপর সি শেখা শুরু করতে হবে। প্রোগ্রামিংয়ে যারা একেবারেই নতুন, তাদের জন্য আমি “কম্পিউটার প্রোগ্রামিং ১ম খণ্ড” নামে একটি বই লিখেছি। এখানে জটিল-কঠিন-ভয়াবহ জিনিসগুলো বাদ দিয়ে বরং মৌলিক জিনিসগুলোর ওপর জোর দেওয়া হয়েছে। আশা করি, বইটি কেউ যদি দুইবার করে পড়ে ফেলে, তাহলে তার বেসিক শক্ত হয়ে যাবে। বইটি রকমারি ডট কম থেকে অর্ডার করা যাবে, এছাড়া আর কোথা থেকে পাওয়া যাব সেটি জানা যাবে দ্বিমিক প্রকাশনীর ওয়েবসাইটে। আবার বইটি ইন্টারনেটে ফ্রিও পড়া যাবে, cpbook.subeen.com ওয়েবসাইট থেকে।

কম্পিউটার প্রোগ্রামিং ১ম খণ্ড – চতুর্থ সংস্করণ

বেসিক তো শেখা হলো, কিন্তু প্রোগ্রামিং তো চর্চার বিষয়। নতুনরা অনুশীলন করবে কীভাবে? আমার মতে “কম্পিউটার প্রোগ্রামিং ১ম খণ্ড” বইটি পড়ার পরে সবার যেই বইটি পড়া উচিত, সেটি হচ্ছে তাহমিদ রাফির লেখা “প্রোগ্রামিং এক্সারসাইজ“। এখানের উদাহরণ ও অনুশীলনীগুলো করে ফেলতে হবে।

সি তো শিখতেছি, কিন্তু ভিডিও দেখে শিখতে পারলে ভালো হত – কারো কারো এমনটি মনে হতে পারে। তাদের জন্য আছে দ্বিমিক কম্পিউটিংয়ের ফ্রি অনলাইন কোর্স “প্রোগ্রামিংয়ে হাতেখড়ি”। ভিডিওগুলো আমার ইউটিউব চ্যানেলেও দেখা যাবে।

ওপরের কাজগুলো করার পরে আরো সি শিখতে হবে। এবারে একটু এডভান্সড বিষয়। এজন্য আমি লিখেছি “কম্পিউটার প্রোগ্রামিং ২য় খণ্ড“। এখানে পয়েন্টার, রিকার্শন, ফাইল, স্ট্রাকচার ইত্যাদি বিষয়গুলো আলোচনা করা হয়েছে। এই বইটিও কমপক্ষে দুবার পড়তে হবে।

এখন, প্রোগ্রামিং শেখার পাশাপাশি, প্রবলেম সলভিংও করতে হবে। শুরুতে সহজ প্রবলেম সলভ করাই ভালো। এজন্য তৈরি করা আছে দ্বিমিক অনলাইন জাজ। এই ভিডিওগুলো দেখলে সেখানে শুরু করা সহজ হবে। প্রবলেমগুলো নিজে নিজে সমাধান করতে পারলেই সবচেয়ে ভালো, আর তা না পারলে “৫২টি প্রোগ্রামিং সমস্যা ও সমাধান” বইটি পড়া যেতে পারে।

প্রবলেম সলভিং করতে করতে গিয়ে মনে হবে, একটু ডেটা স্ট্রাকচার ও অ্যালগরিদম জানলে ভালো হতো। সি দিয়ে ডেটা স্ট্রাকচার ও অ্যালগরিদমের সঙ্গে পরিচিত হওয়ার জন্য আমার লেখা “কম্পিউটার প্রোগ্রামিং ৩য় খণ্ড – ডেটা স্ট্রাকচার ও অ্যালগরিদম পরিচিতি” বইটি পড়তে পারো। বই পড়ার পাশাপাশি ইউটিউবে আমার ভিডিও লেকচারগুলোও কাজে আসবে বলে আমি মনে করি।

ওপরের কাজগুলো ঠিকঠাকভাবে করলে আমি মনে করি সি প্রোগ্রামিং ভাষা দিয়ে প্রোগ্রামিং শেখা – এই পথে তুমি বহুদূর এগিয়ে যাবে। তারপরও কেউ আরেকটি বই পড়তে চাইলে আমি বলব The C Programming Language বইটি পড়ার জন্য।

লিঙ্ক –

Facebook Comments

Leave a Reply